পাকিস্তানকে পাশে পাচ্ছেন এরদোগান

চলমান অর্থনৈতিক মন্দা ও সংগ্রামে পাকিস্তানকে পাশে পাচ্ছে তুরস্ক। তুরস্কের এমন সঙ্কটকালীন মুহুর্তে দেশটির প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগানের প্রতি নিজের সহযোগিতা ও সহমর্মিতার জানান দেন পাকিস্তানের নব নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।
এক টুইট বার্তায় এরদোগানের যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে ঘোষণা করা ‘অর্থনৈতিক সংগ্রামে’ নিজের সমর্থন জানান ইমরান খান। তিনি লেখেন, পাকিস্তানের জনগণের পক্ষ থেকে এবং আমার পক্ষ থেকেও তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোগান এবং দেশটির জনগণের উদ্দেশ্যে বলতে চাই যে, তাদের দাবিয়ে রাখার জন্য যে অর্থনৈতিক প্রতিবন্ধকতা তারা মোকাবেলা করছে তার সফলতার জন্য আমরা দোয়া করছি। নিজেদের ইতিহাসে তারা আগেও বিভিন্ন যুদ্ধে এভাবেই সফল হয়েছে।
পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের পক্ষ তুরস্কের প্রতি সমর্থন জানিয়ে এক বিবৃতি দেয়। সমস্যার সমাধানের জন্য যুক্তরাষ্ট্র এবং তুরস্ককে আলোচনায় বসার অনুরোধও জানানো হয় ঐ বিবৃতিতে।
গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে তুরস্কে বন্দী থাকা এক মার্কিন ধর্মপ্রচারকের মুক্তি দাবি করে যুক্তরাষ্ট্র। তবে প্রেসিডেন্ট এরদোগান তা নাকচ করে দিলে গত সপ্তাহে তুর্কি পণ্যের ওপর দ্বিগুণ হারে কর আরোপ করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।
এর ফলে গত জানুয়ারির পর ডলারের বিপরীতে তুর্কি মুদ্রার লিরার দাম সর্বোচ্চ ৩৪ শতাংশ পর্যন্ত বেড়ে যায়। এদিকে মার্কিন কর আরোপের জেরে দেশটির ইলেকট্রনিক পণ্যের প্রতি নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোগান।

আপনার মতামত