ধর্মনিরপেক্ষ নয়, ভারতকে ‘হিন্দু রাষ্ট্র’ ঘোষণা

টাকার জন্য মুসলমানদের সম্পত্তি বিক্রির সিদ্ধান্ত মোদির

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : সংবিধানে ভারতবর্ষের যে সংজ্ঞা রয়েছে সেটা হয়ত এবার বদলে ফেলতে চাচ্ছে বিজেপির নেতা মন্ত্রীরা। কারণ সংবিধানে লেখা আছে ভারত ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র। কিন্তু বিজেপি সাংসদ ও অভিনেতা রবি কিষাণের দাবি ভারত ‘হিন্দু রাষ্ট্র’। আবার বর্তমানে মুসলমানদের বিনা অপরাধে পিটিয়ে মারার কথা আজ প্রায় বিশ্বের সমস্থ পত্র পত্রিকায় লেখা রয়েছে ।

বুধবার রবি কিষাণের এক বক্তব্যের পর থেকেই দেশজুড়ে বিতর্কের ঝড় বয়ে গেছে। সিটিজেনশিপ অ্যামেন্ডমেন্ট বিল নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে সংবাদসংস্থা এএনআইকে রবি কিষাণ বলেন, ভারতে হিন্দুদের সংখ্যা ১শ কোটি। তাই স্বাভাবিকভাবেই ভারত একটি হিন্দু রাষ্ট্র।

সে আরও বলেছে, বিশ্বে খ্রিস্টান ও মুসলিম দেশ রয়েছে। আমাদের সংস্কৃতিকে বাঁচিয়ে রাখতে ভারত নামের একটি আশ্চর্য দেশ রয়েছে। সে বলেছে,  হিন্দু রাষ্ট্র থাকতে সমস্যা কোথায়?

নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের পরিপ্রেক্ষিতে রবি কিশনের বক্তব্য এসেছে। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল মন্ত্রিসভার অনুমোদন পেয়েছে। এখন এই বিলটি হাউসে প্রবর্তন করা হবে। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল ১৯ জুলাই ২০১৬ লোকসভায় প্রবর্তিত হয়েছিল কিন্তু পরে সংসদের যৌথ কমিটিতে প্রেরণ করা হয়েছিল।